হৃদরোগীরা যে খাবারগুলো থেকে দূরে থাকবেন

হৃদরোগীরা যদি খাবার নিয়ে একটু সচেতন থাকেন,তবে তারা অনেক শারীরিক জটিলতা থেকে নিজেকে মুক্ত রাখতে পারবেন। সাধারনত ভুল খাদ্যাভ্যাস আর পর্যাপ্ত শারীরিক শ্রমের অভাবেই হৃদরোগের সুচনা হয়।আর একবার এই রোগে আক্রান্ত হলে আপনাকে বাকিটা জীবন কিছুটা নিয়ম মেনে চলতেই হবে।আপনার খাদ্যাভ্যাস ধীরে ধীরে বদলে ফেলুন এবং কি ধরেনর ব্যায়াম আপনি করতে পারেবন তা আপনার ডাক্তারের কাছ থেকে জেনে নিন। আজকে শেয়ার করব কোন খাবার গুলো আপনি মেনু থেকে বাদ দিবেন,তা।


যে খাবার গুলো বাদ দিতে হবে দৈনিক খাবার তালিকা থেকে:

১.ডিমের কুসুম এবং কুসুম সহ ডিম ব্যবহার করা হয়েছে এমন খাবার।
২.প্রক্রিয়াজাত খাবার যেমন- আলুর চিপস, সসেজ ইত্যাদি।
৩.লবনাক্ত খাবার। সাধারনত প‌্যাকেট জাত খাবারে অতিরিক্ত লবণ থাকে।
৪.লাল মাংস,ননীসহ দুধ ও দুদ্ধজাত খাবার,নারকেল তেল, পাম তেল বাদ দিন । কারন এতে আছে saturated fat।
৫.অতিরিক্ত চিনির ব্যবহার বাদ দিন।
৬.Trans fat যা fast food থেকে সহজেই পাওয়া যায়।
৭.আইসক্রীম। এতেও Trans fat আছে।
৮.ডুবো তেলে ভাজা খাবার।
৯.সাদা আটা /ময়দা
১০.কেক
১১.বেকারি বিস্কুট
১২.খাবার প‌্যাকেটের লেভেলে যদি প্রথম ৫ টি উপাদানের মধ্যে hydrogenated” বা “partially-hydrogenated oil লেখা থাকে তবে ঐ খাবার বাদ দেয়াই উত্তম হবে।

উচ্চ কোলেস্টেরল যুক্ত খাবার

১.ডিমের কুসুম
২.কলিজা
৩.মাখন
৫.চিংড়ি মাছ
৬.Fast Foods
৭.পণির
৮.বিবিন্ন রকমের বেকড খাবার যেমন- বিস্কিট, কুকিস, কেক, ডোনাট ইত্যাদি
৯.গরু ও খাসীর মাংস
১০.মগজ
১১.ননীসহ দুধ
১২.hydrogenated vegetable oils

খাবার তালিকা থেকে উচ্চ কোলেস্টেরল যুক্ত খাবার গুলো বাদ দিন।পরিবারের অন্যান্য সদস্যদেরও এসব খাবারের ব্যাপারে নিরুৎসাহিত করুন।

Please Share:

Related posts

Leave a Comment