আপনার শিশু কি সঠিক ভাবে বেড়ে উঠছে?

শিশুর বেড়ে ওঠার স্বাভাবিক ধাপ গুল না জানার কারনে আমাদের অনেকেই বাচ্চার বিকাশগত সমস্যা গুল ধরতে পারি না এবং দেরি করে ব্যবস্থা নেয়ার কারনে বাচ্চার বিকাশ অনেক সময় বাধাগ্রস্থ হয়। আসুন আমরা জেনে নেই একটি স্বাভাবিক বিকাশ হচ্ছে এমন বাচ্চা কোন বয়সে কি কি করে থাকেঃ ৪ মাস বয়সেঃ উজ্জ্বল রঙের বস্ত ও এর নড়াচড়ার দিকে খেয়াল করে এবং সাড়া দেয়। শব্দের দিকে ঘুরে তাকায়। অন্যের চেহারার দিকে আগ্রহ নিয়ে তাকায়। আপনি তার দিকে তাকিয়ে হাসলে সেও ফিরতি হাসি দেয়। ৬ মাস বয়সেঃ আপনার সাথে আনন্দ নিয়ে যুক্ত থাকে। তার…

Read More

ডায়াবেটিক রোগীর চিনিশুন্য হওয়া

ডায়াবেটিক রোগী রক্তে সুগার নিয়ন্ত্রন করার জন্য যে ঔষধ বা ইনসুলিন ব্যবহার করে তার মাত্রা যদি খুব বেশী হয়ে যায় অথবা রোগী যদি সময় মতো খাবার না খায়, কিংবা বমি বা পাতলা পায়খানা করে তাহলে হঠাৎ করে রক্তে গ্লুকোজ এর মাত্রা খুব কমে যেতে পারে। যখন এর মাত্রা খুবই কমে যায় তখন রোগী অসুস্থ হয়ে অজ্ঞান পর্যন্ত হয়ে যেতে পারে। কাজেই এই ব্যপারে শুরু থেকেই সকল রোগীর খুব সতর্ক থাকতে হবে এবং জেনে নিতে হবে এমন অবস্থা হলে কি করতে হবে। অসুধ বা ইনসুলিন ব্যবহার করার পরে রোগী যদি অসুস্থ…

Read More

ধুমপান ত্যাগে করণীয়

সবার আগে নিজের মন থেকে সব যুক্তিগুলো সাজিয়ে নিয়ে সীদ্ধান্ত নিন, মনকে দৃঢ করুন, ইচ্ছা শক্তি বাড়ান। আপনার ব্যক্তিত্বের শক্তিশালী দিকগুলো নিজের কাছে তুলে ধরুন এবং ঠিক করুন আজ থেকেই ছেড়ে দিচ্ছেন ধুমপান। বাসায়, ড্রয়ারে বা পকেটে সিগারেট থাকলে তা কোনোরকম দ্বিধা না করে এখনই ফেলে দিন, শুরু হোক আপনার সাহসী পথ চলা। যে সকল স্থানে ধুমপান নিষিদ্ধ সে সকল স্থানে (সেটা হতে পারে মসজিস, যাদুঘর, লাইব্রেরী অথবা আপনার অফিসের কক্ষ অথবা হাসপাতালে) আপনার মূল্যবান সময় কাটান। ক্যান্সার আক্রান্ত আত্মীয়স্বজন থাকলে তাদের সাথে অনেক সময় কাটান। হাসপাতালো কোন পরিচিত রোগী…

Read More

এনজিওপ্লাস্টি (PTCA) করা রোগীদের জন্য পরামর্শ

১– পরামর্শ পত্রে প্রদত্ত অসুধ অবশ্যই নিয়মিত সেবন করতে হবে। ২– ওজন নিয়ন্ত্রনে রাখতে হবে। ৩– চর্বি জাতীয় খাবার কম খেতে হবে। ৪– ধুমপান, জর্দা, তামাকপাতা, গুল ইত্যাদি দ্রব্য ব্যবহার চিরতরে বন্ধ করতে হবে। ৫– বুকে চাপ বা ব্যথা অনুভব হলে বা শ্বাসকষ্ট হলে দ্রুত হৃদরোগ হাসপাতালের বহিঃবিভাগে দেখা করুন অথবা হৃদরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন। ৬– এনজিওপ্লাস্টি করার প্রথম সপ্তাহে বিশ্রামে থাকতে হবে। পরবর্তীতে প্রতিদিন হাল্কা কাজ কর্ম থেকে শুরু করে ক্রমান্বয়ে স্বাভাবিক কাজকর্মে ফিরে যেতে হবে। খাদ্য নির্দেশনাঃ এনজিওপ্লাস্টি করা রোগীদের খাদ্য নির্দেশনা করোনারি হৃদরোগীদের খাদ্য নির্দেশনার অনুরূপ। অর্থাৎ–…

Read More

যাত্রাপথে নিরাপদ খাবার

ভ্রমণ আমরা সকলেই পছন্দ করি। অনেকের কাছে এটা নেশার মতো। অজানাকে জানার দুর্বার আগ্রহে নতুন নতুন স্থানে ভ্রমণ সকলেই পছন্দ করেন। যাত্রাকালে খাবার একটা বড় বিষয়। খাবারের কারনেই অধিকাংশ সময় মানুষ ভ্রমনে অসুস্থ হয়ে পড়ে অথচ কিছু সাধারণ বিষয়ের দিকে নজর দিলে এসব ঝামেলা অনেকটা এড়ানো সম্ভব। আমাদের দেশে পানিবাহিত রোগ অনেক বেশি হয়। টাইফয়েড, জন্ডিস, আমাশয় খুব পরিচিত পানিবাহিত রোগ। যাত্রা পথে বিশুদ্ধ পানির প্রয়োজন কিন্তু খুব বেশি পানি সাথে করে নেওয়া সম্ভব হয়না। এজন্য সাথে নিতে পারেন হ্যালোজেন ট্যাবলেট। এক লিটার পানিতে একটা ট্যাবলেট ছেড়ে দিয়ে ৩০-৬০ মিনিটের…

Read More

ঈদের আহার

আজ ঈদুল আযহা, কোরবানির ঈদ। খুশির দিনে রকমারি খাবার তো সকলেই চাই, একদিন না হয় বাধ ভেঙ্গে ভোজন চলুক, তবে কিছু বিষয় খেয়াল রেখে ভোজনে মাতলে শরীরের জন্য ভালো হয়। খাবার নিয়ে সমস্যা শুরু হয় মূলত ৪০ এর পর থেকেই। অপেক্ষাকৃত তরুণদের মেনে বেছে খাওয়া তেমন প্রয়োজন পড়ে না যদিও এখন বলা হচ্ছে তরুনদেরও খাবার নিয়ে সচেতন হতে। ঈদে গরু, খাসীর সাথে ফ্রি হিসেবে আমরা পাচ্ছি তেল-চর্বি। রান্নায় তেল-চর্বি না থাকলে স্বাদ যেমন আসেনা তেমনি তেল-চর্বির কারণে স্বাস্থ্য ঝুঁকিও বেড়ে যায় বহুগুণে। উচ্চরক্তচাপ, ডায়াবেটিস, হৃদরোগে যারা আক্রান্ত তাদের জন্য গরু-খাশির…

Read More

চুল পড়া রোধ করুন

সাধারন ভাবেই আমরা প্রতিদিন কিছু চুল হারাই। কিন্তু এই চুল পড়ার হার যদি স্বাভাবিক এর চেয়ে বেশি হয় এবং দীর্ঘ দিন ধরে চলতে থাকে, তাহলে আমাদের বিশেষ কিছু ব্যবস্থা নিতে হবে যাতে চুল পড়ার এই ব্যপারটা আমাদের হাতের নাগালের বইরে চলে না যায়। এই ব্যবস্থা গুল নিয়েই আজকে আমাদের আলোচনা। অনেক ক্ষেত্রেই দেখা যায় আমাদের শরিরে আয়রন এর অভাবে আমাদের চুল পড়ে যায়। আয়রন এর অভাবে আমাদের দেহে লহিত রক্ত কণিকার সংখ্যা কমে যায়, যা আমাদের চুলের গোঁড়ার (হেয়ার ফলিকল) জন্য খুবি গুরুত্বপূর্ণ। খুব সহজেই একটি ছোট ডায়াগনস্টিক টেস্ট এর…

Read More

রমজানের সময় বিশেষ খাদ্যাভ্যাস কেন প্রয়োজন?

প্রায় শেষের দিকে মাহে রমজান। যথারীতি পত্রপত্রিকায় রমজানের বিশেষ খাদ্যাভ্যাস নিয়ে অনেক লেখাই চোখে পড়বে সবার। অনেক কথাই বলা হবে, অনেক উপদেশ দেয়া হবে কিন্তু জানা হবে না কেন ডাক্তাররা এসব কথা বলেন বার বার। আজ সেসব পেছনের কারনগুলো নিয়েই জানবো আমরা।   বেশী করে পানি ও শরবত খেতে বলা হয়ঃ এমনিতেই গরমের সময়ে পড়েছে রোজা তার পরে সারাদিন পানি খাওয়া হয় না। কম পানি পান করলে হজমেও সমস্যা হয়, শরীরের অঙ্গগুলোর কাজ ঠিকমতো চলার জন্য প্রয়োজন পর্যাপ্ত পানি। দেহের পানির চাহিদা মেটাতে তাই রোজা ভাঙার পরে বেশী করে পানি…

Read More

বুক জ্বালা ও এসিডিটিঃ কি খাবেন, কি খাবেন না

সামনে রমজান মাস। সারাদিনের সিয়াম সাধনার পরে আহারে এক আধটু ভালোমন্দ সকলেই খেতে চাই। রসনা বিলাসের সাথে পাল্লা দিয়ে বাড়তে থাকে এসিডিটি, বুক জ্বালা। আজ আমাদের আলোচ্য বিষয় সেইসব খাবার নিয়ে যেগুলো বুক জ্বালা বৃদ্ধি ও হ্রাসে সহায়ক। সারাদিনের অনাহারের পরে এমনিতেই পেটে থাকেনা কোন খাবার। ভাজাপোড়া খাবার বাড়িয়ে দিবে এসিডিটির পরিমাণ। ভাজাপোড়া খাবারে রয়েছে অতিরিক্ত তেল বা চর্বি। চর্বি যুক্ত খাবার হজম হতে সময় নেয় বেশি, পাকস্থলিতে থাকে অধিক সময়, তাই এসিডের কাজ ও চলে বেশিক্ষন ধরে। যার ফলাফল বুক জ্বালা করা। সাইট্রাস বা লেবু জাতীয় ফলের বিশেষ দুর্নাম…

Read More

জানুন কোনগুলো হাড় ক্ষয়কারী খাদ্য উপাদান

দেহের কাঠামো গঠিত হয় অস্থি বা কংকাল দিয়ে যা বহন করে সমগ্র মানবশরীরকে। হাড়ের রোগগুলোর মাঝে অস্টিওপোরোসিস বর্তমানে সব থেকে বেশি দেখা যায় যার কারনে  ক্ষয়ে যেতে থাকে হাড়ের দৃঢ় গঠন। কিছু খাবার রয়েছে যেগুলো হাড় ক্ষয়ে সহায়তা করে আবার কিছু খাবার সাহায্য করে গঠনে। আমাদের আজকের আলোচনায় শুধুমাত্র খাদ্যের ভূমিকা নিয়ে কথা বলবো। হাড়ের দৃঢ় গঠনে ক্যালসিয়াম, ভিটামিন ডি, ফসফরাস অনেক গুরুত্বপূর্ণ। এগুলোর পরিমাণে হেরফের হলে ফলাফল হিসেবে আসে ভঙ্গুর অস্থি। প্রথমে বলতে হয় অতিরিক্ত লবণ গ্রহনের কথা। রান্না খাবার ছাড়া আর কোন ভাবে অতিরিক্ত লবণ খাওয়া চলবে না।…

Read More