জাপানে শিশু ও মাতৃমৃত্যুর হার কমানোর লক্ষ্যে সম্মেলন

 

সম্প্র্রতি জাপানের কোবে শহরের আন্তর্জাতিক সম্মেলনকেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল জাপানি সোসাইটি অব পেরিনেটাল ও নিওনেটাল মেডিসিনের ৪৬তম বার্ষিক সম্মেলন। এই সম্মেলনে জাপানের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকসহ যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, চীন, তাইওয়ান, মালয়েশিয়া, কোরিয়া, ভিয়েতনাম, বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক অংশ নেন। গত ১১ থেকে ১৩ জুলাই পর্যন্ত এই সম্মেলন চলে।
কংগ্রেস সভাপতি অধ্যাপক আকিয়ো কুবোতার আমন্ত্রণে বাংলাদেশের ১০ সদস্যের চিকিৎসক দল অংশ নেয়। ঢাকা মেডিকেল কলেজের ্রশিশু সার্জারি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক আবদুল হানিফ নবজাতকদের সার্জারির আট বছরের অভিজ্ঞতার ওপর প্রবন্ধ উপস্থাপন এবং নিওনেটাল সার্জারি সেশনে সভাপতিত্ব করেন।
ঢাকা শিশু হাসপাতালের অধ্যাপক আজাদ বাংলাদেশের শিশু স্বাস্থ্যের সামগ্রিক চিত্র, সাফল্য ও সীমাবদ্ধতা তুলে ধরেন। ঢাকা শিশু হাসপাতালের সার্জারির অধ্যাপক আবদুল আজিজ খাদ্যনালি ও পায়ুপথের জন্মগত ত্রুটির সফল সার্জারির ওপর প্রবন্ধ ও পোস্টার সেশনে সভাপতিত্ব করেন। ঢাকা মেডিকেলের কানিজ হাসিনা নবজাতকের জন্মগত ডায়াফ্রাম হার্নিয়া রোগীদের সার্জারির মাধ্যমে সুস্থ করে তোলার অভিজ্ঞতা বর্ণনা করেন। সম্মেলনে ঢাকা মেডিকেলের নিওনেটালজি বিভাগের অধ্যাপক মো. আবিদ হোসেন মোল্লা ও শিশু বিভাগের অধ্যাপক এল ই ফাতমীসহ অধ্যাপক নওয়াজেস, অধ্যাপক সিদ্দিকী ও চিকিৎসক এম এস হক অংশ নেন। সম্মেলনে স্টেম সেল, ফিটাল সার্জারি চাইল্ড অ্যাবিউস, নিরাপদ মাতৃত্ব, জন্মগত ত্রুটি প্রতিরোধ, শিশু ও পরিবেশসহ গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে প্রবন্ধ উপস্থাপিত হয়। রোগীরা নিজেরাও তাঁদের অভিজ্ঞতা বর্ণনা করেন।

Please Share:

Related posts

Leave a Comment